নতুন ভূমিকায় আসছেন সালমান বাট

প্রকাশিত: জুন ৯, ২০২১

পাকিস্তানের ক্রিকেটে তার উত্থানটা হয়েছিল ধূমকেতুর মতো। মিলিয়েও গেছেন। সেটা নিজেরই ভুলে। ২০১০ সালে স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে জড়িয়ে জীবনটা এলোমেলো হয়ে যায় সালমান বাটের।

পাঁচ বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ক্রিকেটে ফিরেছেন ঠিকই। কিন্তু আগের মতো কদর আর পাননি। জাতীয় দলে ডাক পাওয়া তো পরের কথা। একটা সময় যাকে পাকিস্তানের কিংবদন্তি ওপেনার সাঈদ আনোয়ারের উত্তরসূরী মনে করা হতো, সেই বাট এখন উপেক্ষার দিন কাটিয়ে ক্যারিয়ারের গোধূলি লগ্নে।

তবে ৩৬ বছর বয়সী সালমান বাট থামছেন না। বরং তার ক্যারিয়ার এখন নতুন মোড় নিচ্ছে। ক্রিকেটারের অধ্যায় শেষ হওয়ার পর ম্যাচ রেফারি হিসেবে মাঠে দেখা যেতে পারে তাকে।

সালমান বাটসহ ৪৮ জন ক্রিকেটার আম্পায়ার এবং ম্যাচ অফিসিয়ালদের অনলাইন লেভেল-১ কোর্সে অংশ নিয়েছেন। সোমবার থেকে শুরু হয়েছে এই কোর্স, যার সার্বিক তত্ত্বাবধানে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)।

পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটারদের নতুন কর্মক্ষেত্রে যুক্ত করার জন্যই পিসিবির এই প্রয়াস। এই প্রোগ্রামের পরিচিত মুখদের মধ্যে আছেন পাকিস্তানের সাবেক পেসার আবদুল রউফ এবং সাবেক অলরাউন্ডার বিলাল আসিফও।