ফরিদগঞ্জে ময়লার স্তুপের মধ্যে মিলল নবজাতকের লাশ

প্রকাশিত: জুন ৯, ২০২১

চারপাশে মাছি ভনভন করছে। পথচারীদের ধারণা, ময়লার ভাগাড় বলে হয়তো এমনটি। কিন্তু না, সেখানে চোখ ফেলা মাত্রই দেখা গেল এক নবজাতকের লাশ। চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ ময়লার স্তূপে মিলেছে হতভাগ্য এই নবজাতকের মৃতদেহ।

আজ বুধবার (০৯ জুন) বিকেলে উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তার কার্যালয়ের পাশে ময়লার আবজনার স্তুপের মধ্য থেকে এই নবজাতকের লাশ উদ্ধার করলো ফরিদগঞ্জ থানা পুলিশ সদস্যরা।

ফরিদগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শহীদ হোসেন বলেন, ছেলে নবজাতককে কে বা কারা ময়লার স্তুপে ফেলে রেখে চলে গেছে। ঘটনাটি পথচারীদের চোঁখে পড়লে পুলিশকে বিষয়টি জানানো হয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে হতভাগ্য এই নবজাতকের লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

ওসি আরো জানান, ধারনা করা হচ্ছে, প্রায় সাত মাস বয়সী অপরিণত বয়সী নবজাতকের লাশটি মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। এ ঘটনায় গর্ভজাত শিশু হত্যা আইনে পুলিশ বাদী হয়ে একটি মামলা করেছে। নবজাতকের লাশ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুর সরকারী জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এলাকাবাসী ও পথচারীদের ধারনা ফরিদগঞ্জে অসংখ্য প্রাইভেট হাসপাতাল রয়েছে। কোন প্রাইভেট হাসপাতাল থেকে হয়তো এ নবজাতক মেরে এখানে ফেলে গেছে,তারা। এ ব্যাপারে প্রশাসনিক হস্তক্ষেপ পাওয়া গেলে বিষয়টি বেড় হয়ে আসবে।